• শুক্রবার, ০১ জুলাই ২০২২, ০২:৩৩ পূর্বাহ্ন

সিনেমা নির্মাণে ৪০ শতাংশ অর্থ দেবে সৌদি সরকার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: / ২৬ শেয়ার
প্রকাশিত : শনিবার, ২৮ মে, ২০২২

সৌদি আরবে সিনেমা মুক্তি পাচ্ছে মাত্র চার বছর হলো। ৩৫ বছরের নিষেধাজ্ঞা তুলে পশ্চিম এশিয়ার সিনেমাগুলো সবচেয়ে বেশি মুক্তি পায় দেশটিতে। সংবেদনশীল ধর্মীয় বা রাজনৈতিক বিষয়, যৌনতা এবং সমকামিতা স্পর্শ করে এমন সিনেমা এখনও নিষিদ্ধ দেশটিতে।

এবার নিজস্ব সিনেমা নির্মাণে জোর দিয়েছে সৌদি সরকার। সেই লক্ষ্যে নিজেদের সংস্কৃতি, প্রাকৃতিক সৌন্দর্য, ইতিহাস ও সৌদির মানুষের গল্প উঠে আসে, এমন নির্মাণে প্রযোজকদের অর্থ সহায়তা দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে দেশটির সরকার।

হলিউডভিত্তিক প্রভাবশালী পোর্টাল ডেডলাইন এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, নির্দিষ্ট ওই সব বিষয়ে সিনেমা নির্মাণে যে অর্থ ব্যয় করা হবে, তার সর্বোচ্চ ৪০ শতাংশ পর্যন্ত ফেরত পাবেন প্রযোজকেরা। কান চলচ্চিত্র উৎসবে এই ঘোষণা দিয়েছে সৌদি ফিল্ম কমিশন।

সৌদি আরব গত ১৮ মাসে তিনটি হলিউড সিনেমা, আটটি নিজেদের সংস্কৃতির সিনেমা এবং বেশ কয়েকটি তথ্যচিত্র নির্মাণ করেছে।

এর আগে মার্কিন সাময়িকী ভ্যারাইটি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছিল, ২০২১ সালে সিনেমার বাজার থেকে সৌদি আরবের আয় ৪৫০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার, যা বাংলাদেশি মুদ্রায় তিন হাজার ৮৫০ কোটি টাকার বেশি। এমন আয়ের ফলে গবেষণা সংস্থা ওমদিয়া বলছে, ২০২৫ সালে সৌদি আরব বিশ্বের দশম বৃহত্তম সিনেবাজার হওয়ার পূর্বাভাস দিচ্ছে। বর্তমানে দেশটিতে ১৫৪টি সিনেমা হল চালু আছে, যাতে ৫০০ স্ক্রিনে সিনেমা প্রদর্শন হয়।

এখানেই শেষ নয়, সৌদি আরব তাদের বিনোদন খাতে ৬৪ বিলিয়ন মার্কিন ডলার বিনিয়োগ করেছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ