• মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ১১:৪০ অপরাহ্ন

মাদারীপুরের শিবচরে পারিবারিক কলোহের জেরে স্ত্রীকে হত্যা: ঘাতক স্বামী গ্রেফতার

প্রতিবেদকের নাম / ৬৪ শেয়ার
প্রকাশিত : মঙ্গলবার, ৫ এপ্রিল, ২০২২

মাদারীপুর থেকে নাজমুল কবীর
মাদারীপুরের শিবচরে পারিবারিক কলহে স্বামীর ধারালো অস্ত্রের আঘাতে ২ সন্তানের জননী আয়শা (৩০) খুন হয়েছে। এদিকে আজ সকালে (৫/৪/২০২২) ঘাতক স্বামী রেজ্জেক তালুকদারকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
শিবচর উেজেলার শিবচর ইউনিয়নের চরশ্যামাইল গ্রামের খালেক তালুকদারের ছেলে অটো চালক রাজ্জাক তালুকদার গতকাল রাতে স্ত্রী আয়শাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপায় স্বামী রেজ্জেক তালুকদার। এরপর স্ত্রীকে হাসপাতালে নিয়ে যান। হাসপাতালে রেখেই স্বামী ও তার পরিবারের সদস্যরা পালিয়ে যায়। শিবচর থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে আজ মঙ্গলবার সকালে উপজেলার চরশ্যামাইল থেকে ঘাতক স্বামীকে গ্রেফতার করে।
আয়েশা আক্তার রাজ্জাকদারের ২য় স্ত্রী। তার সাথে পারিবারিক কলহ নিয়ে প্রায়ই ঝগড়া হতো সোমবার সন্ধ্যায় নিজ বাড়িতে স্বামী রাজ্জাক তালুকদারের সাথে স্ত্রী আয়শার সাথে পারিবারিক বিষয় ও মোবাইলে কথা বলা নিয়ে কথাকাটাকাটি হয়। কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে স্বামী রাজ্জাক তালুকদার স্ত্রীকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে পেটে ও নাকে আঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলেই আয়শার মৃত্যু হয়।

জানা যায় ঘরের মধ্যে চেচাঁমেচির শব্দ পেয়ে প্রতিবেশীরা এগিয়ে আসে এবং আয়শাকে নিথর অবস্থায় ঘরের মেঝেতে পড়ে থাকতে দেখে হাসপাতালে নেয়ার কথা বললে রাজ্জাক ও তার পরিবারের সদস্যরা আয়শাকে নিজের ইজিবাইকে করে শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। নিহত আয়শার শাওন নামের একটি ছেলে ও সিনথিয়া নামের একটি মেয়ে রয়েছে।

সহকারী পুলিশ সুপার (শিবচর সার্কেল) মো. আনিসুর রহমান জানান, হত্যাকান্ডের পর ঘাতক স্বামী তার স্ত্রীর লাশ হাসপাতালে রেখে পালিয়ে যায়। পুলিশ অভিযান চালিয়ে আজ সকালে ঘাতক রেজ্জেক তালুকদারকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছে। প্রাথমিকভাবে গ্রেফতারকৃত রেজ্জেক হত্যাকান্ডের দায় স্বীকার করেছে। পারিবারিক কলোহের জেরেই রাগান্বিত হয়ে তার স্ত্রীকে ধারালো কেচি দিয়ে পেটে আঘাত করেছে বলে পুলিশের কাছে স্বীকার করে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ