• শনিবার, ২২ জানুয়ারী ২০২২, ১২:১৬ পূর্বাহ্ন

বসুমতি-রাইদা-অনাবিলসহ ২৫ পরিবহনের রুট পারমিট বাতিলের সুপারিশ

আমার কাগজ প্রতিবেদকঃ / ২৬ শেয়ার
প্রকাশিত : শুক্রবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০২১

সরকার নির্ধারিত ভাড়ার চেয়ে অতিরিক্ত ভাড়া আদায়, রুট পারমিট না থাকা এবং একই অপরাধ পুনরায় করায় বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) ভ্রাম্যমাণ আদালতের ম্যাজিস্ট্রেটদের প্রতিবেদন অনুযায়ী রাজধানীর ২৫ বাস কোম্পানির রুট পারমিট বাতিলের সুপারিশ করা হয়েছে।

গত ৮ অক্টোবর থেকে বৃহস্পতিবার (৯ ডিসেম্বর) পর্যন্ত অভিযানের ভিত্তিতে এ প্রতিবেদন করা হয়। অভিযানে গত এক মাসে ঢাকা মহানগরে এক হাজার ৪০৮টি বাসকে ৫৭ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। এর মধ্যে ৮০টি বাস সিএনজিচালিত ও এক হাজার ৩২৮টি বাস ডিজেলচালিত। বিআরটিএ পরিচালক (এনফোর্সমেন্ট) মো. সরওয়ার আলম সাংবাদিকদের এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

অভিযানে সরকার নির্ধারিত ভাড়ার চেয়ে অতিরিক্ত ভাড়া আদায়, রুট পারমিট না থাকাসহ নানা অপরাধে ৫৬টি বাস ডাম্পিংয়ে পাঠানো হয়েছে। পাঁচজন বাসচালককে বেপরোয়া গাড়ি চালানো ও সরকারি দায়িত্ব পালনে বাধা দেওয়ায় কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। বিআরটিএর ম্যাজিস্ট্রেটদের প্রতিবেদন অনুযায়ী একই অপরাধ পুনরায় করায় এ ২৫ বাস কোম্পানির রুট পারমিট বাতিলের সুপারিশ করা হয়েছে।

একই ধরনের অপরাধ বসুমতি ১৬ বার, রাইদা ১৩ বার, পরিস্থান ১১ বার, এমএম লাভলী ও অনাবিল ১০ বার, আলিফ নয়বার, লাব্বাইক আটবার, তুরাগ, বলাকা ও স্বাধীন সাতবার, প্রজাপতি, রজনীগন্ধা ও শিকড় ছয়বার, আকাশ আজমেরি, মনজিল, প্রভাতী ও বনশ্রী পাঁচবার, আসমানী, প্রচেষ্টা, ভিক্টর, মিডলাইন, ডি লিংক, রাজধানী, গুলিস্তান, গাজীপুর পরিবহন, ভিআইপি বাস তিনবার করেছে। বার বার আইন লঙ্ঘন করায় এসব বাস কোম্পানির পরিবহনের রুট পারমিট বাতিলের সুপারিসসহ আইনগত ব্যবস্থা নিতে রিজিওনাল ট্রান্সপোর্ট কমিটির (আরটিসি) কাছে সুপারিশ পাঠানো হয়েছে।

মাসব্যাপী এ অভিযানে বিভিন্ন সময় সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব মো. নজরুল ইসলাম, বিআরটিএর চেয়ারম্যান নুর মোহাম্মদ মজুমদারসহ মালিক পক্ষের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ