• বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২, ০১:০৭ পূর্বাহ্ন

টোয়ায় জরুরি অবস্থা জারি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক / ৪৫ শেয়ার
প্রকাশিত : সোমবার, ৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২২

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:
প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর সরকারের জারি করা করোনাভাইরাস সংক্রান্ত বিধি নিষেধের বিরুদ্ধে কানাডার রাজধানী অটোয়াতে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ করেছেন হাজার হাজার মানুষ। এক সপ্তাহের বেশি সময় ধরে চলা এই আন্দোলনে সেখানকার বাসিন্দাদের জীবনযাত্রা ব্যহত হচ্ছে। এমন পরিস্থিতি সেখানে জরুরি অবস্থা জারি করেছেন মেয়র জিম ওয়াটসন।
সোমবার (৭ জানুয়ারি) বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত খবরে একথা জানানো হয়েছে।

জিম ওয়াটসন বলেন, ‘পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গেছে। পুলিশের চেয়ে বিক্ষোভকারীদের সংখ্যা বেশি। বিক্ষোভকারীদের জন্য শহরটির বাসিন্দাদের নিরাপত্তা হুমকির মধ্যে পড়েছে। বিক্ষোভকারী ট্রাক চালকরা নিজেদের গাড়ি এবং থাকার জন্য তাবু স্থাপন করে শহরের মূল কেন্দ্র অচল করে দিয়েছে।’

চলতি মাসের শুরুর দিকে সরকার যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডা সীমান্ত অতিক্রমকারী ট্রাক চালকদের জন্য করোনার টিকা নেওয়া বাধ্যতামূলক করে দেশটির লিবারেল সরকার। এরপর থেকেই দেশটির পূর্ব ও পশ্চিমাঞ্চল থেকে শত শত ট্রাকচালক রাজধানী অটোয়ায় পার্লামেন্ট ভবনের সামনে জড়ো হয়ে বিক্ষোভে অংশ নেন। এই আন্দোলনের নাম দেওয়া হয়েছে ‘ফ্রিডম কনভয়।’

সিএফআরএ নামের একটি রেডিওকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে জিম ওয়াটসন বলেন, ‘বিক্ষোভকারীরা হর্ন বাজিয়ে এবং আতশবাজি পুড়িয়ে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করছে। আমরা সংখ্যায় কম। লড়াইয়ে হেরে যাচ্ছি। অবশ্যই বিক্ষোভকারীদের থামাতে হবে। আমাদের শহরকে আগের অবস্থায় নিয়ে যেতে হবে।’

জরুরি অবস্থা জারির পর কেমন পদক্ষেপ নেওয়া হবে সে বিষয়ে কোনো ধারণা দেননি মেয়র। তবে দেশটির পুলিশ বোরবার জানায়, তারা আইনশৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে কঠোর পদক্ষেপ নেবে। বিক্ষোভকারীদের যারা সহযোগিতা করছে তাদের আটক করা হতে পারে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ