• শুক্রবার, ২০ মে ২০২২, ০১:০৫ অপরাহ্ন

খালেদা জিয়াকে বিদেশে চিকিৎসার পরামর্শ দিয়েছে মেডিকেল বোর্ড

আমার কাগজ প্রতিবেদকঃ / ৬২ শেয়ার
প্রকাশিত : সোমবার, ৮ নভেম্বর, ২০২১

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে বিদেশে উন্নত চিকিৎসা নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছে দেশি-বিদেশি চিকিৎসকদের সমন্বয়ে গঠিত এভারকেয়ার হাসপাতালের মেডিকেল বোর্ড।

রোববার (৭ নভেম্বর) রাতে খালেদা জিয়ার গুলশানের বাসভবন ফিরোজার সামনে তার ব্যক্তিগত চিকিৎসক ও বিএনপির ভাইস-চেয়ারম্যান ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন এ কথা জানান।

২৬ দিন এভারকেয়ার হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে রোববার সন্ধ্যায় বাসায় ফেরেন বিএনপি চেয়ারপারসন ।

ডা. জাহিদ বলেন, গতবারের মতো এবারও এভারকেয়ার হাসপাতালের মেডিকেল বোর্ডের চিকিৎসকরা সুচিকিৎসার জন্য তাকে (খালেদা জিয়া) দেশের বাইরে নিতে বলেছেন।

তিনি বলেন, সত্যিকার অর্থেই তার খুব ভালো বিশেষায়িত চিকিৎসা দরকার। ম্যাডাম নিজে ও তার পরিবার বিষয়টি বুঝতে পারছেন। আপনাদের (সাংবাদিকদের) মাধ্যমে তিনি (খালেদা জিয়া) সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন, যেন দ্রুত সুস্থ হয়ে আবারও সবার মাঝে ফিরতে পারেন।

অধ্যাপক জাহিদ হোসেন বলেন, ম্যাডামকে গত ১২ অক্টোবর হাসপাতালে নেওয়ার পর মেডিকেল বোর্ডের চিকিৎসকরা বিস্তৃত পরীক্ষা-নিরীক্ষার প্রয়োজন বোধ করেন। সেই অনুযায়ী পরীক্ষা-নিরীক্ষা হয়। একটি বিষয় অত্যন্ত সতর্কতার সঙ্গে লক্ষ্য রাখতে হবে, উনি বিভিন্ন রোগে আগে থেকেই আক্রান্ত ছিলেন এবং আছেন।

তিনি বলেন, গত চার বছর উনি যখন জেলখানায় ছিলেন সেখানে সত্যিকার অর্থে সুচিকিৎসার বন্দোবস্ত সরকারের পক্ষ থেকে করা হয়নি। এ অবস্থায় উনার সুচিকিৎসা অত্যন্ত জরুরি। তাই দেশি-বিদেশি চিকিৎসকদের সমন্বয়ে গঠিত মেডিকেল বোর্ড তাকে দেশের বাইরে মাল্টি ডিসিপ্লিনারি ডেভেলপড্ সেন্টারে পরবর্তী চিকিৎসা নিতে পরামর্শ দিয়েছেন।

এসময় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ২৬ দিন পর আজ তিনি (খালেদা) বাসায় ফিরে এসেছেন। তিনি এখন ভালো আছেন। আমরা পরম করুণাময় আল্লাহর কাছে শুকরিয়া আদায় করছি। আপনাদের মাধ্যমে আবার দেশবাসীর কাছে দেশনেত্রী খালেদা জিয়ার জন্য দোয়া চাচ্ছি।

খালেদা জিয়ার বাসভবন ফিরোজার সামনে এ সময় বিএনপি নেতা আমান উল্লাহ আমান, আবদুস সালাম, শ্যামা ওবায়েদ, নাজিম উদ্দিন আলম এবং ব্যক্তিগত চিকিৎসক ডা. আল মামুন উপস্থিত ছিলেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ