• মঙ্গলবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২২, ১১:৪৩ অপরাহ্ন

কষ্টে উরুগুয়েকে হারাল আর্জেন্টিনা

স্পোর্টস ডেস্ক: / ৪১ শেয়ার
প্রকাশিত : শনিবার, ১৩ নভেম্বর, ২০২১

বিশ্বকাপের বাছাই পর্বের ম্যাচে উরুগুয়েকে হারিয়েছে আর্জেন্টিনা। ডি মারিয়ার একমাত্র গোলে কষ্টের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে লিওনেল স্কালোনির দল। তাতে কাতার বিশ্বকাপ খেলার পথে আরেক ধাপ এগিয়ে গেল মেসিরা।

শনিবার বাংলাদেশ সময়ে ভোরে উরুগুয়ের মাঠ এস্তাদিও কাম্পেওন দেল সিগলোতে বাছাইয়ের ম্যাচটি ১-০ গোলে জিতে নিয়েছে আর্জেন্টিনা।

ম্যাচে নির্ধারিত সময়ের ১৫ মিনিট বাকি থাকতে দলের সেরা তারকাকে বদলি নামান কোচ। তার জায়গায় খেলতে নেমেছিলেন পাওলো দিবালা।

বল দখলে এগিয়ে থাকলেও আর্জেন্টিনার সাত শটের তিনটি ছিল লক্ষ্যে। অপরদিকে উরুগুয়ে শট নেয় ১৯টি, যদিও এর মাত্র চারটিই ছিল লক্ষ্যে।

ম্যাচের ৭ মিনিটেই গোলের দেখা পায় আর্জেন্টিনা। দিবালা ডি বক্সের ডান প্রান্ত থেকে বল বাড়ান ডি মারিয়ার উদ্দেশ্যে। বল ধরেই বাঁ বায়ের দর্শনীয় শটে দূরের পোস্ট থেকে বল জালে পাঠান পিএসজি মিডফিল্ডার।

শুরুর সেই গোল হজমের পর উরুগুয়ে অনেক চেষ্টা করেছে ম্যাচের ফেরার। ৩২তম মিনিটে দুর্ভাগ্য বাধা হয়ে না দাঁড়ালে গোল পেতে পারতো তারা। লুইস সুয়ারেজের শট গোলরক্ষককে ফাঁকি দিলেও পোস্টে লেগে ফেরে।

প্রথমার্ধের বাকি সময়ে একচেটিয়া চাপ ধরে রাখে উরুগুয়ে। অনেক সুযোগ তৈরি করে তারা; কিন্তু জালের দেখা মেলেনি। ৪২তম মিনিটে মাতিয়াস ভেসিনোর নিচু শট ভাঙতে পারেনি মার্তিনেস বাধা।

দ্বিতীয়ার্ধে ফিরেই আর্জেন্টিনার ডি-বক্সে বল নিয়ে ঢুকেন হোয়াকিন পিকেরেস। এ যাত্রায় লক্ষ্যভ্রষ্ট শট নেন তিনি। ম্যাচের ৮৪তম মিনিটে আলভারেস মার্তিনেসের হেড ক্রসবারের একটু ওপর দিয়ে গেলে বেঁচে যায় আর্জেন্টিনা। দুই মিনিট পর সুয়ারেজের সোজাসুজি ভলি ধরতে গিয়ে তালগোল পাকান মার্তিনেস। তবে বল তার পেছনে পায়ে বাধা পেলে হাফ ছেড়ে বাঁচে আর্জেন্টিনা শিবির।

৭৬তম মিনিটে বদলি হিসেবে মাঠে নামেন মেসি। তিনি দলের জয়ের ব্যবধান না বাড়াতে পারলেও, ২৬ ম্যাচ অপরাজিত থাকার রেকর্ড নিয়েই মাঠ ছাড়ে আলবিসেলেস্তেরা। গেল ১০ ম্যাচে এটা আর্জেন্টিনার ৯ম জয়।

এ নিয়ে সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে সবশেষ ২৬ ম্যাচে অপরাজিত রইল স্কালোনির দল।

১২ ম্যাচ শেষে আর্জেন্টিনার পয়েন্ট এখন ২৮। ৩৪ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে ব্রাজিল। আগামী বুধবার ভোরে ব্রাজিলের মুখোমুখি হবে মেসিরা।

মেসিদের চেয়ে ৮ পয়েন্ট কম নিয়ে তিন নম্বরে একুয়েডর। পরের তিনটি স্থানে আছে চিলি, কলম্বিয়া ও উরুগুয়ে। তাদের সবার পয়েন্ট ১৬।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ