• রবিবার, ১৪ অগাস্ট ২০২২, ১২:১৯ অপরাহ্ন

আদালতের নির্দেশ উপেক্ষিত: বাজিতপুরে বসত বাড়িতে হামলা-মারধর, আহত ১

প্রতিবেদকের নাম / ৩৩ শেয়ার
প্রকাশিত : বুধবার, ৩ আগস্ট, ২০২২
উজ্জ্বল গংদের হামলায় আহত তহুরা খাতুন

বাজিতপুর প্রতিনিধি
বিরোধীয় একটি সম্পত্তির ওপর আদালত স্থিতিবস্থা বজায় রাখার নোটিশ দিয়েছিল। থানা থেকে সেই নোটিশ জারির তিনদিনের মাথায় এক পক্ষ সন্ত্রাসী কায়দায় সেটি দখলে নিয়েছে। দুর্বৃত্তরা এ সময় অপর পক্ষের বাড়িঘরে হামলা ও ভাংচুর চালিয়েছে। এতে পঞ্চাশোর্ধ এক মহিলা আহত হন। আদালতের নির্দেশ উপেক্ষার পরও থানা পুলিশ নিষ্ক্রিয় ভূমিকা পালন করে চলেছে বলে অভিযোগ ওঠেছে।
ঘটনাটি কিশোরগঞ্জের বাজিতপুরে।
জানা যায়, বাজিতপুরের পূর্ব বসন্তপুর গ্রামে সি.এস. ৬০ নং খতিয়ানের সি.এস. ১৭১ নং দাগের সম্পত্তিতে গত ছয় দশকের বেশি সময় ধরে বংশ পরম্পরায় ভোগ দখল করে আসছে মো. কানু মিয়া (৪৮) ও তাদের পরিবার। প্রতিবেশি মোঃ উজ্জল গং উক্ত সম্পত্তির অংশ বিশেষের মালিকানা দাবি করে আদালতে একাধিক মামলা করেন। প্রতিটি মামলায় আদালত উজ্জ্বল গংদের বিপক্ষে রায় দেন। একটি মামলা আপীল বিচারাধীন রয়েছে। কানু মিয়া স¤প্রতি জায়গার ওপর একটি ঘর নির্মাণ কাজ শুরু করেন। তবে উজ্জল গংদের আবেদনের প্রেক্ষিতে আদালত গত ২৯ জুলাই স্থিতিবস্থা বজায়ের নির্দেশ দেন। একই সঙ্গে আগামী ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ শুনানির দিন ধার্য করেন। নোটিশ পেয়েই কানু মিয়া নির্মাণ কাজ বন্ধ করে দেন। এরই মধ্যে গত ১ আগস্ট বাড়ির আশপাশে বহিরাগতদের ঘোরাঘুরি লক্ষ্য করা যায়। এতে আতংকিত হয়ে কানু মিয়া ওইদিনই থানায় জিডি করতে যান। কিন্তু ডিউটি অফিসার সেই জিডি গ্রহণে অস্বীকৃতি জানান। তবে পরদিনই আশংকা সত্য প্রমাণ হয়।
জানা যায়, গত সোমবার (২ আগস্ট) সকালে উজ্জ্বল, তোফাজ্জল, জামাল, কামাল, সুজনসহ বহিরাগত প্রায় ৪০/৫০ জন্য লোক কানু মিয়ার বাড়িতে হামলা চালায়। তারা জোরপূর্বক বসতভিটার সামনের কিছু অংশ নিজেদের দাবি করে সেখানে কাঁটাতারের বেঁড়া দিয়ে দেয়। এ সময় বাধা দিলে সন্ত্রাসীরা কয়েকজনকে মারধর করে। এতে তহুরা খাতুন (৫৬) একজন আহত হয়েছেন। তিনি বাজিতপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন আছেন। ঘটনার সময় সন্ত্রস্ত লোকজন ৯৯৯ এ ফোন করে সহায়তা চান। পরে বাজিতপুর থানা পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে আসে। কিন্তু তার আগেই সন্ত্রাসীরা দখলপর্ব সম্পন্ন করে চলে যায়।
এ ব্যাপারে জানতে বাজিতপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ শফিকুল ইসলামের সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, সামান্য ধাক্কাধাক্কি হয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। আদালতের নির্দেশনা যাতে কেউ উপেক্ষা না করে সে ব্যাপারে ব্যবস্থা নেয়া হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ